প্রচ্ছদ প্রযুক্তি

দ্বিতীয় সাবমেরিন ক্যাবলে যুক্ত হচ্ছে বাংলাদেশ

a1001বিএ নিউজ: দ্বিতীয় সাবমেরিন ক্যাবল সংযোগে যুক্ত হতে যাচ্ছে বাংলাদেশ। এতে ক্রমবর্ধমান ব্যান্ডউইথ চাহিদা পূরণ ও ক্যাবল সংযোগ নিরবিচ্ছিন্ন থাকবে।

মঙ্গলবার জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভায় ৬৬০ কোটি টাকা ব্যয়ে ‘আঞ্চলিক সাবমেরিন টেলিযোগাযোগ প্রকল্প, বাংলাদেশ’ নামে এ সম্পর্কিত একটি প্রকল্পের অনুমোদন দেয়া হয়।

ডাক ও টেলিগোযোগ বিভাগের এ প্রকল্পের মোট ব্যয়ের মধ্যে সরকারি কোষাগার থেকে ১৬৬ কোটি, প্রকল্প সাহায্য ৩৫২ কোটি এবং সংস্থার নিজস্ব তহবিলের ১৪২ কোটি টাকা দেয়া হবে।

প্রধানমন্ত্রী ও একনেক চেয়ারপারসন শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে সকালে পরিকল্পনা কমিশনের এনইসি সম্মেলন কক্ষে এ সভায় আঞ্চলিক সাবমেরিন টেলিযোগাযোগ প্রকল্পসহ ২ হাজার ৩৬৫ কোটি ৩৪ লাখ টাকায় মোট ১০টি প্রকল্পের অনুমোদন দেয়া হয়।

এর মোট ব্যয়ের মধ্যে সরকারি অর্থায়ন হচ্ছে ১ হাজার ৫৩১ কোটি ৩৩ লাখ, প্রকল্প সাহায্য ৬৮১ কোটি ৩৭ লাখ এবং সংস্থার নিজস্ব অর্থায়ন ১৫২ কোটি ৬৪ লাখ টাকা। অনুমোদিত প্রকল্পগুলোর মধ্যে ৬টি নতুন এবং ৪টি সংশোধিত।

সভা শেষে পরিকল্পনামন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল সাংবাদিকদের ব্রিফকালে বলেন, বর্তমানে বাংলাদেশ আন্তর্জাতিক তথ্য প্রযুক্তির মহাসড়কে সাউথ ইস্ট এশিয়া-মিডল ইস্ট-ওয়েস্ট এশিয়া-৪ (এসইএ-এমই-ডাব্লিউএ-৪) কনসোর্টিয়ামের আওতায় একটি মাত্র সাবমেরিন ক্যাবলের সঙ্গে যুক্ত যা সংক্ষেপে এসএমডব্লিউ-৪ নামে পরিচিত।

তিনি বলেন, কোনো কারণে এ ক্যাবলটির সংযোগ বিচ্ছিন্ন হলে এর বিকল্প হিসেবে এসইএ-এমই-ডাব্লিউএ-৫ ক্যাবলের মাধ্যমে সংযোগ নিরবিচ্ছিন্ন রাখার লক্ষ্যে এ প্রকল্পটি গৃহীত হয়েছে।

পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, এসএম ডব্লিউ-৪ ক্যাবলটি বিশ হাজার কিলোমিটার দীর্ঘ। এর সাথে এশিয়া, আফ্রিকা, মধ্যপ্রাচ্য এবং ইউরোপের ১৪টি দেশের ১৬টি টেলিকম কোম্পানি যুক্ত রয়েছে। এ কেবলটি কোনো কারণে কাটা পড়লে বা অন্য কোন সমস্যা দেখা দিলে তা মেরামত করতে ৭ থেকে ১০ দিন সময় প্রয়োজন হয়। এতে তথ্য প্রযুক্তির কার্যক্রম বাধাগ্রস্ত হবে।

তিনি বলেন, সম্ভাব্য এ সমস্যার উত্তরণের ব্যাকআপ হিসেবে নতুন ক্যাবল এস এমডব্লিউ-৫ এর সাথে সংযুক্ত হওয়ার উদ্যোগ নেয়া হয়। এতে আরো ১৩০০ জিপিএস সাবমেরিন ক্যাবল ব্যান্ডউইথ পাওয়া যাবে এবং এসএমডব্লিউ-৫ হচ্ছে এসএমডব্লিউ-৪ এর চেয়ে দশগুণ শক্তিশালী।

মুস্তফা কামাল বলেন, পটুয়াখালীর কলাপাড়া উপজেলার কুয়াকাটায় এ সাবমেরিন ক্যাবল সংযোগের প্রাউন্ড লোকেশন ঠিক করা হয়েছে। প্রকল্পটি বাস্তবায়িত হলে ডেটা ও ভয়েসের ক্ষেত্রে দেশের ব্যান্ডউইথ চাহিদা বৃদ্ধির সাথে সরবরাহও বৃদ্ধি পাবে।

তিনি বলেন, এতে নিরবিচ্ছিন্ন ইন্টারনেট সংযোগ দেয়ার সঙ্গে এর ক্যাপাসিটি ও স্পিড দুইই বাড়বে এবং দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলেও ইন্টারনেট পৌঁছে যাবে । এ সঙ্গে কল সেন্টার, সফটওয়্যার রপ্তানি ও ডাটা এন্ট্রি খাত প্রসারিত হবে।

Adil Travel Winter Sale 2ndPage

প্রযুক্তি : সকল সংবাদ

আজকের এই দিনে
স্মরণ-অবিস্মরণীয়-শহীদ-জিয়া
মোহাম্মদ জয়নাল আবেদীন: একেবারেই অপরিচিত ব্যক্তি শহীদ জিয়াউর রহমান কেবল অসীম দেশপ্রেম, অদম্য ইচ্ছাশক্তি, অকুতোভয় মানসিকতা, উদারহণযোগ্য  সততা, সর্বোপরি বাংলাদেশের...