প্রচ্ছদ মানবাধিকার

ভূয়া ডিবির দাপট, আসল- নকল চেনার উপায় কি?

a5465বিএ নিউজ: গায়েপায়ে বেশ বড়সড়, ছোটছোট চুল, মাইক্রোবাসে সাদা পোশাকের ছয় থেকে সাতজনের ছোট দল। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কাছে থাকা সকল সরঞ্জম ও অস্ত্র থাকে এই দলের কাছে। তাদের বহনকারী মাইক্রোবাসের সামনেই সাটানো থাকে ডিবি অথবা র‌্যাব লেখা স্টিকার। এরপর দাবিয়ে বেড়ায় রাজধানীসহ সারাদেশ। ছিনতাই, ডাকাতি, অপহরণ, চাঁদাবাজী এবং নির্যাতনসহ সকল অপরাধের সঙ্গে জড়িত এই চক্র। নিজেদের এরা কখনো র‌্যাব ও ডিবি পরিচয় দেয়। আসলে এরা কারা? পুলিশের দাবি এরা ভুয়া ‘ডিবি’ বা ‘র‌্যাব’। তাদের এই দাবির সত্যতা মিলে মাঝেমাঝে চক্রের কোনো দল আটক হলে। তা ছাড়া জানার উপায় নেই তারা ‘আসল’ নাকি ‘নকল’। রাজনৈতিক নেতাকর্মীদের তুলে নেওয়ার ঘটনাও ঘটছে অহরহ। প্রশ্ন উঠেছে, এরা আসলে কারা? কে আসল কে নকল তাও শনাক্ত করা যাচ্ছে না।

রাজধানীসহ সারা দেশে প্রতিদিনই ডিবি ও র‌্যাব পরিচয় দিয়ে অপরাধ বেড়েই চলছে। প্রবাসী, রাজনৈতিক নেতাকর্মী ও স্থানীয় পয়সাওয়ালা ব্যক্তিরা এদের টার্গেটে পরিনত হচ্ছে।
গোয়েন্দা তথ্যানুযায়, রাজধানীর পাশ্ববর্তী শিল্প এলাকায় এই চক্রের তৎপরতা আরো বেশি। কেরানীগঞ্জ, নারায়ণগঞ্জ এবং গাজীপুরে অর্ধশতাকি চক্র কাজ করে যাচ্ছে। কেরানীগঞ্জে এক বছরে ২০-২৫ জন ব্যবসায়ী ও প্রবাসীর লাখ লাখ টাকা ছিনিয়ে নেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এসব ঘটনায় ঢাকা জেলা দক্ষিণ ডিবি পুলিশ বিব্রতকর অবস্থায় পড়েছে। কে আসল কে নকল ডিবি পুলিশ, শনাক্ত করা যাচ্ছে না। ১৯ মে রাতে ঢাকার দক্ষিণ কেরানীগঞ্জের ইকুরিয়া হাসনাবাদ মার্কেটের কাছ থেকে একটি মাইক্রোবাসসহ মো. আবদুল কাউয়ুম, মো. আলমগীর হোসেন, মো. সেলিম হোসেন, মো. শহিদুল ইসলাম, মো. জাকারিয়া হোসেন ও মো. বিল্লাল হোসেন নামে ৬ ভুয়া ডিবি পুলিশকে আটক করা হয়েছে। আটকদের বিরুদ্ধে ঢাকা জেলা দক্ষিণের ডিবি পুলিশের সহকারী উপপরিদর্শক মো. হোসাইন খান বাদী হয়ে থানায় মামলা করেছেন। ঢাকা জেলা ডিবি পুলিশ মামলা তদন্ত করছে। আসামিরা কেরানীগঞ্জসহ মুন্সীগঞ্জ জেলার সিরাজদীখান এলাকায় ৫টি ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটিয়েছে বলে পুলিশের কাছে স্বীকারোক্তি দিয়েছে। ১৮ মে কেরানীগঞ্জের কদমতলী গোলচত্বর এলাকার ইসলামী ব্যাংক থেকে টাকা তুলে ফেরার পথে প্রকাশ্য দিবালোকে ঢাকা-মাওয়া সড়কের আবদুল্লাহপুর এলাকায় সৌদি প্রবাসী জাহিদ হোসেনের কাছ থেকে এ গ্রুপটি সাড়ে ৬ লাখ টাকা ডিবি পুলিশ পরিচয়ে ছিনিয়ে নিয়ে যায়।
সৌদি প্রবাসীর বাবা মো. আলী হোসেন জানান, মাওয়া সড়কের আবদুল্লাহপুরের কাছে এলে ডিভি পুলিশের স্টিকার লাগানো একটি সাদা মাইক্রোবাস অটোরিকশাটি ঘিরে ধরে। তাদের কাছে ইয়াবা থাকার অভিযোগ করে মাইক্রোবাসে তুলে ঝিলমিল আবাসন প্রজেক্টের ভেতর নিয়ে যায়। পরে ভয়ভীতি দেখিয়ে সাড়ে ৬ লাখ টাকা রেখে দেয়। এর আগে ১৭ মে সিরাজদীখান থানার পঞ্চপুড়া গ্রামের মনির হোসেনের ছেলে কুয়েত প্রবাসী জাকির হোসেনের কাছ থেকে ১১ লাখ ৬০ হাজার টাকা ডিবি পুলিশ পরিচয়ে ছিনিয়ে নেওয়া হয়।
সিরাজদীখান থানার ডিবি পুলিশের উপপরিদর্শক মাসুম খান ঘটনাটি তদন্ত করে সত্যতা পেয়েছেন। ৮ মাস আগে বাস্তা ইউনিয়নের দড়িগাঁও এলাকার ব্যবসায়ী আলমগীর হোসেন ইসলামী ব্যাংক থেকে ১৫ লাখ টাকা নিয়ে যাওয়ার পথে ডায়মন্ড মেলামাইনের কাছ থেকে ডিবি পুলিশ পরিচয়ে কয়েকজন লোক তার টাকা ছিনিয়ে নেয়। এ ঘটনার তিন মাস পর ৩ ভুয়া ডিবি পুলিশকে আটক করে পুলিশ। তারা ঘটনার বিষয়ে পুলিশের কাছে স্বীকারোক্তি দিয়েছে।
গাজীপুরের টঙ্গীর মধুমিতা এলাকায় গত ৫ মার্চ ছিনতাইকালে দুই ভুয়া ডিবি পুলিশকে আটক করে গণপিটুনি দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করেছেন এলাকাবাসী।
পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, মধুমিতা রোড এলাকায় গতকাল বেলা দুইটার দিকে মাইক্রোবাসযোগে পাঁচ-ছয়জন লোক নিজেদের গোয়েন্দা পুলিশ পরিচয়ে বিকাশ কর্মী সোহেল আহম্মেদের কাছ থেকে ফেক্সিলোড ও মোবিক্যাশের ছয়
লাখ টাকা ছিনিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করে। এ সময় তাঁর চিৎকারে এলাকাবাসী এগিয়ে আসেন এবং তাদের মধ্যে দুজনকে আটক করে গণপিটুনি দেন। পরে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে হ্যান্ডকাফসহ আহত ভুয়া দুই ডিবি পুলিশকে আটক এবং তাদের বহনকারী মাইক্রোবাসটি জব্দ করে।
এছাড়াও গাজীপুরের জয়দেবপুরে গত ১১ মে রাতে একটি বিদেশি পিস্তল, ওয়াকিটকি সেট, হাতকড়া ও একটি মাইক্রোবাসসহ চার ব্যক্তিকে আটক করেছে পুলিশ।
জয়দেবপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) খন্দকার রেজাউল হাসান রেজা ঘটনার পর সংবাদকর্মীদের জানান, কয়েকজন সশস্ত্র সন্ত্রাসী ভুয়া ডিবি পুলিশ সেজে ছিনতাইয়ের উদ্দেশে মাইক্রোবাসে করে মহাসড়কে ঘোরাঘুরি করছে, এমন সংবাদের ভিত্তিতে জয়দেবপুর থানার পুলিশ রাতে ঢাকা বাইপাস সড়কের নাওজোর এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করে।
গত ১৯ মে রাজধানীল বাড্ডা এলাকা থেকে ডিবি পুলিশের ছয় সদস্যকে গ্রেফতার করেছে ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) গোয়েন্দা ও অপরাধতথ্য বিভাগ। চক্রটি এক চেয়ারম্যানকে অপহরণ করে মুক্তিপন আদায় করছিল। গ্রেফতারকৃতরা প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানান, তারা দীর্ঘদিন যাবত পুলিশের বেশভূষা ধারণ করে মিথ্যা ডিবি পরিচয় দিয়ে প্রতারণামূলকভাবে সাধারণ মানুষকে ভয়-ভীতি প্রদর্শন করে নগদ টাকা, স্বর্ণালংঙ্কার ইত্যাদি সুকৌশলে হাতিয়ে নেন।
এদিকে, গত ২৫ মে সিরাজগঞ্জের তাড়াশে র‌্যাব পরিচয়ে একটি জমি দখলের সময় মনিরুল ইসলাম (৩৫) নামে এক ভুয়া র‌্যাব সদস্যকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে গ্রামবাসী।
পুলিশ জানায়, নওখাদা গ্রামের মুনছুর রহমান ও তার চাচা ময়দান আলীর মধ্যে একটি বিবাদমান জমি দখলকে কেন্দ্র করে বিরোধ বাধে। দুপুরে ময়দান আলীর পক্ষে মনিরুল ইসলাম র‌্যাব -৪ এর সদস্য পরিচয় দিয়ে মনছুরকে হুমকি প্রদান করে এবং তাকে নানাভাবে ভয়ভীতি দেখায়। এসময় তার আচরণ দেখে স্থানীয়দের সন্দেহ হলে তারা মনিরুলকে আটক করে পুলিশে খবর দেয়। খবর পেয়ে পুলিশ আটক ভুয়া র‌্যাব সদস্যকে গ্রেফতার করে।
এবিষয়ে র‌্যাবের মুখপাত্র কমান্ডার মুফতি মাহমুদ খান শীর্ষ নিউজকে বলেন, ‘অনেক ভুয়া র‌্যাব-ডিবি আমরা ধরেছি। এখনও ধরা পড়ছে। জনসাধারণকে আমরা অনুরোধ করবো, এধরণের কোনো চক্রের সন্ধান পেলে আমাদেরকে জানান, আমরা ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।’
যাছাই করার আগেই অনেকে অস্ত্রের মুখে অপহৃত হয়ে যায়, তখন ভুক্তোভোগীরা কি করবেন-এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘স্বজনদের সহযোগিতায় হলেও দ্রুত আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সহযোগিতা নিতে হবে।’পাচারকারী

Adil Travel Winter Sale 2ndPage

মানবাধিকার : সকল সংবাদ

আজকের এই দিনে
লোকে-যারে-বড়-বলে-বড়-সেই-হয়
আবদুল আউয়াল ঠাকুর : বাংলা প্রবচন হচ্ছে, আপনারে বড় বলে বড় সেই নয়, লোকে যা বড় বলে বড় সেই হয়। সরকারের দ্বিতীয় মেয়াদে ক্ষমতাসীন হওয়ার দ্বিতীয় বর্ষপূর্তি কেন্দ্র করে এমন কিছু...